পৃথিবীর তাপবলয়

পৃথিবীর তাপবলয়

TROPIC OF CANCER AND CAPRICORN
পৃথিবীর তাপবলয়

তাপমাত্রার তারতম্য অনুসারে গােলাকার ভূপৃষ্ঠকে কয়েকটি নির্দিষ্ট মণ্ডল বা বলয়ে ভাগ করা যায় । এই বিভাগগুলিকেই বলে তাপমণ্ডল বা তাপবলয়

ভূপৃষ্ঠে মােট পাঁচটি তাপবলয় আছে । এগুলি হল — 

( ১ ) উষ্ণমণ্ডল , 

( ২ ) উত্তর নাতিশীতোষ্ণ মণ্ডল , 

( ৩ ) দক্ষিণ নাতিশীতোষ্ণ মণ্ডল , 

( ৪ ) উত্তর হিমমন্ডল এবং 

( ৫ ) দক্ষিণ হিমমন্ডল  ।

উষ্ণমণ্ডল বা গ্রীষ্মমন্ডল

নিরক্ষরেখার উত্তরে ও দক্ষিণে 23½° অক্ষরেখা পর্যন্ত বিস্তৃত স্থানে অর্থাৎ কর্কটক্রান্তি ও মকরক্রান্তির মধ্যবর্তী অঞ্চলে প্রত্যেকটি স্থানে বছরের অন্তত দু-দিন মধ্যাহ্ন সূর্যরশ্মি লম্বভাবে পড়ে এবং বছরের অন্যান্য দিনেও সূর্যরশ্মি এখানে খুব বেশি তীর্যকভাবে পড়ে না । তাই সারা বছর এই অঞ্চলে বায়ুর তাপমাত্রা অন্যান্য অঞ্চলের তুলনায় বেশি থাকে । এজন্য এই অঞ্চলটির নাম উষ্ণমণ্ডল বা গ্রীষ্মমন্ডল । 27° সে. বা 80° ফা. সমােষ্ণরেখাকে অনেক সময় উষ্ণমন্ডলের সীমারেখা ধরা হয় । সেক্ষেত্রে নিরক্ষরেখার উত্তরে ও দক্ষিণে 30° অক্ষরেখা পর্যন্ত বিস্তৃত স্থান সমূহ উষ্ণমন্ডলের অন্তর্ভুক্ত হবে ।

উত্তর নাতিশীতোষ্ণ মণ্ডল এবং দক্ষিণ নাতিশীতোষ্ণ মণ্ডল

কর্কটক্রান্তি ও মকরক্রান্তি  রেখা থেকে সুমেরু বৃত্ত এবং কুমেরু বৃত্ত পর্যন্ত তীর্যক রশ্মির জন্য বায়ুর উষ্ণতা মাঝারি ধরনের হয় । এজন্য এই অঞ্চলটির নাম নাতিশীতোষ্ণ মণ্ডল । এর মধ্যে কর্কটক্রান্তি রেখা ( 23½° উঃ ) থেকে সুমেরুবৃত্ত ( 66½° উঃ ) পর্যন্ত বিস্তৃত অঞ্চলটির নাম উত্তর নাতিশীতোষ্ণ মণ্ডল এবং মকরক্রান্তি রেখা ( 23½° দঃ ) থেকে কুমেরুবৃত্ত ( 66½° দঃ ) পর্যন্ত বিস্তৃত অঞ্চলটির নাম দক্ষিণ নাতিশীতোষ্ণ মণ্ডল । সমােষ্ণরেখার হিসেবে 27° থেকে 0° সে সমোষ্ণরেখার মাঝখানের স্থান সমূহ নাতিশীতাে‌ষ্ণ মণ্ডলের অন্তর্গত । 

উত্তর হিমমন্ডল এবং দক্ষিণ হিমমন্ডল

উভয় মেরুর চারদিকে সূর্যরশ্মি অত্যন্ত তীর্যকভাবে পড়ে , বছরের কিছুটা সময় একটুও সূর্যরশ্মি পাওয়া যায় না । এজন্য এই অঞ্চলের উ‌ষ্ণতা খুবই কম — অধিকাংশ সময় হিমময় বা বরফাবৃত থাকে । এজন্য এই অঞ্চলের নাম হিমমন্ডল । এর মধ্যে সুমেরু বৃত্ত ( 66½° উঃ ) থেকে সুমেরু ( 90° ) পর্যন্ত বিস্তৃত অঞ্চলের নাম উত্তর হিমমন্ডল এবং কুমেরু বৃত্ত ( 66½° দঃ ) থেকে কুমেরু ( 90° দঃ ) পর্যন্ত বিস্তৃত অঞ্চলের নাম দক্ষিণ হিমমন্ডল । সমােষ্ণরেখার হিসেবে 0° সে. সমােষ্ণরেখা থেকে দুই মেরুবিন্দু পর্যন্ত হিমমণ্ডল ।

Leave a Comment

error: Content is protected !!