রাজ্য বিধানসভার ক্ষমতা ও কার্যাবলী

রাজ্য বিধানসভার ক্ষমতা ও কার্যাবলী

আইন প্রণয়ন 

সংবিধান অনুযায়ী রাজ্য বিধানসভার সমগ্র রাজ্য বা রাজ্যের যে কোনো অংশের জন্য আইন প্রণয়ন করার ক্ষমতা রয়েছে । রাজ্য তালিকা ভুক্ত সমস্ত বিষয়ে এককভাবে আইন প্রণয়নের অধিকারী হল বিধানসভা । যুগ্ম তালিকা ভুক্ত বিষয়েও বিধানসভা আইন প্রণয়ন করতে পারে । 

শাসন বিভাগকে নিয়ন্ত্রণ 

বিধান সভায় সংখ্যা গরিষ্ঠ দল বা জোটের সদস্যদের নিয়ে রাজ্য মন্ত্রীসভা গঠিত হয় । রাজ্য মন্ত্রীসভার স্থায়িত্ব বিধান সভার সংখ্যা গরিষ্ঠ সদস্যের আস্থার ওপর নির্ভরশীল । সংসদীয় গণতন্ত্রের নীতি অনুযায়ী , রাজ্য বিধানসভা রাজ্য মন্ত্রীসভার প্রতি অনাস্থা জ্ঞাপন করলে মন্ত্রীসভাকে পদত্যাগ করতে হয় । 

সংসদীয় গণতন্ত্রে রাজ্যের শাসন বিভাগকে নিয়ন্ত্রণ করার ক্ষমতা সর্বতোভাবে বিধানসভা ভোগ করে থাকে । প্রশ্ন জিজ্ঞাসা , মুলতুবি প্রস্তাব উত্থাপন , ছাঁটাই প্রস্তাব উত্থাপন , অনাস্থা প্রস্তাব উত্থাপন প্রভৃতির সাহায্যে বিধানসভা রাজ্যের মন্ত্রীসভাকে নিয়ন্ত্রণ করে । রাজ্য মন্ত্রীসভা যৌথভাবে বিধানসভার কাছে দায়বদ্ধ থাকায় মন্ত্রীসভা সমস্ত কাজের জন্য বিধানসভার কাছে জবাবদিহি করতে বাধ্য । 

বিধানসভায় কোনো মন্ত্রীর প্রস্তাব প্রত্যাখ্যাত হলে সমগ্র মন্ত্রীসভাকে পদত্যাগ করতে হয় । তবে বিধানসভার শাসন বিভাগকে নিয়ন্ত্রণ করার এই ক্ষমতা অনেকটাই তাত্ত্বিক , এর সঙ্গে বাস্তবের মিল নেই । বস্তুত , সংসদীয় রাজনীতিতে দল ব্যবস্থা কায়েম থাকায় সংখ্যাগরিষ্ঠ দল বা জোট সব কিছু নিয়ন্ত্রণ করে থাকে । 

অর্থ সংক্রান্ত ক্ষমতা 

সংসদীয় গণতন্ত্রের রীতি অনুসারে রাজ্যের অর্থ সংক্রান্ত যাবতীয় ক্ষমতা একমাত্র বিধানসভার হাতেই রয়েছে । অর্থবিলের বিষয়ে রাজ্য বিধানসভার স্পিকারকে একটি সার্টিফিকেট দিতে হয় । বাজেট অনুমোদনের মাধ্যমে বিধানসভা রাজ্য সরকারের কর আরোপ , কর সংগ্রহ ও ব্যয় বরাদ্দের ক্ষমতা নিয়ন্ত্রণ করে । বিধানসভার অনুমোদন ছাড়া রাজ্য সরকার কোনো কর আরোপ , কর বিলোপ বা কর হারের পরিবর্তন করতে পারে না । 

সংবিধান সংশোধন 

সংবিধান সংশোধনের মূল ক্ষমতা পার্লামেন্টের হাতে থাকলেও রাজ্য বিধানসভার হাতে কিছু ক্ষেত্রে বিশেষ ক্ষমতা রয়েছে । যুক্তরাষ্ট্রীয় স্বার্থ সংশ্লিষ্ট বিষয়ে সংবিধান সংশোধন করতে গেলে ২৮ টি রাজ্য আইনসভার মধ্যে অন্তত অর্ধেকের অনুমোদন প্রয়োজন হয় । এই বিষয়গুলির মধ্যে উল্লেখযোগ্য হল — কেন্দ্র রাজ্যের ক্ষমতা বণ্টন , রাষ্ট্রপতির নির্বাচন , সুপ্রিমকোর্ট ও হাইকোর্ট সম্পর্কিত বিষয় প্রভৃতি । 

অন্যান্য ক্ষমতা 

( i ) বিধানসভা বিভিন্ন বিষয়ে সংবাদ ও তথ্য সরবরাহের ব্যাপারে কার্যকরী ভূমিকা পালন করে । বিধানসভায় প্রশ্নোত্তরকালে মন্ত্রীরা যেসব তথ্য জানান তা বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রচারিত হওয়ায় জনগণ সেসব বিষয়ে অবহিত হয় । 

( ii ) বিধানসভার সদস্যরা রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে ও রাজ্যসভার প্রতিনিধিদের নির্বাচনে অংশগ্রহণ করে থাকেন । 

( iii ) রাজ্যের রাষ্ট্রকৃত্যক কমিশন এবং রাজ্যের কম্পট্রোলার ও অডিটর জেনারেলের রিপোর্ট বিধানসভায় পর্যালোচনা করা হয় । 

( iv ) কোনো রাজ্যের নাম বা সীমানা পুনর্গঠন জনিত বিল পার্লামেন্টে উত্থাপিত হওয়ার আগে রাষ্ট্রপতি বিধানসভার সদস্যদের মতামত জেনে নেন । 

( iv ) গুরুত্বপূর্ণ জাতীয় ও আন্তর্জাতিক বিষয়ে প্রস্তাব গ্রহণ করার ক্ষমতাও বিধানসভার রয়েছে ।

error: Content is protected !!