রাজ্য মন্ত্রিসভার ক্ষমতা ও কার্যাবলী

রাজ্য মন্ত্রিসভার ক্ষমতা ও কার্যাবলী

রাজ্য মন্ত্রীসভার গুরুত্বপূর্ণ কার্যাবলী হল— 

নীতি নির্ধারণ ও রূপায়ণ 

মন্ত্রীসভার প্রধান কাজ হল সরকারি নীতি নির্ধারণ করা এবং গৃহীত নীতিগুলি বাস্তবে রূপায়ণের জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া । এভাবে মন্ত্রীসভা রাজ্যের শাসন বিষয়ক যাবতীয় কাজকর্মকে নিয়ন্ত্রণ করে থাকে । 

আইন প্রণয়ন 

রাজ্য মন্ত্রীসভার হাতে আইন প্রণয়নের ক্ষমতা রয়েছে । রাজ্যের যাবতীয় আইনের খসড়া বা বিল মন্ত্রীসভার নির্দেশে রাজ্য আইন সভায় উপস্থাপন করা হয় । রাজ্য আইনসভায় মন্ত্রীসভার পক্ষ থেকে সংশ্লিষ্ট মন্ত্রীরা বিল উত্থাপন করে থাকেন । এ ছাড়া আইনসভা কোনো আইনের মূলনীতিগুলি নির্ধারণ করার পরে সেগুলিকে পূর্ণতা দানের দায়িত্ব মন্ত্রীসভাকে দিতে পারে । সেক্ষেত্রে মন্ত্রীসভা যেসব আইন প্রণয়ন করে তা অর্পিত ক্ষমতা প্রসূত আইনরূপে পরিচিত । 

আয় ব্যয় নিয়ন্ত্রণ 

মন্ত্রীসভার একটি গুরুত্বপূর্ণ ক্ষমতা হল রাজ্যের সরকারি আয় ব্যয় নিয়ন্ত্রণ । প্রতিবার আর্থিক বছর শুরু হওয়ার আগে রাজ্য মন্ত্রীসভার পক্ষ থেকে অর্থমন্ত্রী বাৎসরিক আয় ব্যয়ের আনুমানিক হিসাব বা বাজেট পেশ করেন । মন্ত্রীসভার আর্থিক নীতি বাজেটের মাধ্যমে প্রতিফলিত হয় । 

অধ্যাদেশ বা অর্ডিন্যান্স জারি 

রাজ্যের আইন সভার অধিবেশন স্থগিত থাকাকালীন রাজ্য মন্ত্রীসভা জরুরি প্রয়োজনে অধ্যাদেশ বা অর্ডিন্যান্স জারি করতে পারে । তবে এ ধরনের অধ্যাদেশকে রাজ্য আইনসভার অধিবেশন শুরু হওয়ার ছয় সপ্তাহের মধ্যে আইনসভা কর্তৃক অনুমোদন করাতে হয় । তা না হলে অধ্যাদেশটি বাতিল হয়ে যায় । 

বিভিন্ন দপ্তরের মধ্যে সমন্বয় সাধন 

সরকারি কাজকর্ম সুষ্ঠুভাবে পরিচালনা করার জন্য সরকারের বিভিন্ন দপ্তরের মধ্যে সমন্বয় সাধনের দায়িত্ব মন্ত্রীসভার ওপর ন্যস্ত । 

সরকারি কর্মীদের নিয়ন্ত্রণ 

মন্ত্রীসভার ওপর রাজ্য সরকারি কর্মীদের নিয়ন্ত্রণ এবং পরিচালনা করার দায়িত্ব রয়েছে । এজন্য রাজ্য মন্ত্রীসভা প্রয়োজনীয় নীতি নির্দেশিকা জারি করতে পারে । 

শাসন বিভাগ ও আইন বিভাগের সংযোগ রক্ষা 

রাজ্য মন্ত্রীসভা রাজ্যের শাসন বিভাগ ও আইন বিভাগের মধ্যে সংযোগ রক্ষার কাজ করে থাকে । রাজ্য প্রশাসনের কর্তা হিসেবে রাজ্য মন্ত্রীসভা যাবতীয় শাসন বিষয়ক প্রস্তাব বা নীতি আইন সভায় ব্যাখ্যা করে থাকে । অন্যদিকে আইনসভাও প্রশাসন সংক্রান্ত যে কোনো বিষয় সম্পর্কে মন্ত্রীসভার মাধ্যমে অবহিত হয় ।

উপসংহার 

ভারতের সংসদীয় শাসন ব্যবস্থার সাম্প্রতিক গতি প্রকৃতি পর্যালোচনা করলে দেখা যায় , কেন্দ্রের মতোই রাজ্যের শাসন বিভাগ বা মন্ত্রীসভার কর্ম পরিধি ব্যাপক ভাবে প্রসারিত হয়েছে । তবে ভারতীয় অঙ্গরাজ্যে রাজ্যপালের স্বেচ্ছাধীন ক্ষমতা থাকায় অনেক সময় রাজ্য মন্ত্রীসভাকে রাজ্যের শাসন ব্যবস্থা পরিচালনায় প্রতিবন্ধকতার মুখোমুখি হতে হয় । অবশ্য রাজ্য মন্ত্রীসভার পেছনে রাজ্যের জনগণের সক্রিয় সমর্থনের ভিত্তি মজবুত থাকলে রাজ্যপালের স্বেচ্ছাধীন ক্ষমতা শাসনকার্য পরিচালনায় অন্তরায় সৃষ্টি করতে পারে না ।

error: Content is protected !!