নিষেক কাকে বলে

নিষেক কাকে বলে

পুংজনন কোশ ও স্ত্রীজনন কোশের মিলনকে নিষেক বা গর্ভাধান বলে ।

স্বনিষেক কাকে বলে 

নিষেক যখন একই গাছের একই ফুলের মধ্যে সম্পন্ন হয় তখন তাকে স্বনিষেক বলা হয় । উদাহরণ – উভলিঙ্গ ফুল

পরনিষেক কাকে বলে

নিষেক যখন একই গাছের বা গাছের দুটি ফুলের মধ্যে ঘটে তখন তাকে পরনিষেক বলা হয় । উদাহরণ – একলিঙ্গ ফুল

নিষেকের সুবিধা ও অসুবিধা 

নিষেকের সুবিধা :

নিষেক প্রক্রিয়ার প্রধান সুবিধাগুলি হল— 

i. শুক্রাণু ও ডিম্বাণু গঠনের সময় মায়ােসিস প্রক্রিয়ায় কোশবিভাজিত হয় । এইরূপ বিভাজনে ক্রশিংওভারের সময় ক্রোমােটিড খণ্ডের আদানপ্রদানের ফলে শুক্রাণু ও ডিম্বাণুর ক্লোমােজমের চরিত্রগত গুণের পুনর্বিন্যাস ঘটে । 

ii. এই জননের ভিন্ন ভিন্ন বংশগত গুণসম্পন্ন শুক্রাণু ও ডিম্বাণুর মিলন ঘটে । এর ফলে অপত্য জীবে উন্নতমানের চরিত্রগত লক্ষণ সৃষ্টি হবার সম্ভাবনা থাকে এবং জীবে বৈচিত্র্য দেখা যায় । 

iii. জীবের অভিযােজন ক্ষমতা বাড়ে ও অবলুপ্তির হাত থেকে লক্ষা পায় । 

নিষেকের অসুবিধা :

নিষেক প্রক্রিয়ার অসুবিধাগুলি হল—  

( i ) দুটি বিপরীত লিঙ্গযুক্ত উদ্ভিদ পাওয়া সবসময় সম্ভব হয় না । 

( ii ) স্ত্রী ও পুংগ্যামেটের মিলনে অনেক সময় বাধার সৃষ্টি হয় , ফলে মিলনের অভাবে অনেক অসুবিধা দেখা যায় ।

error: Content is protected !!