একক পত্র বা সরল পত্র কাকে বলে

একক পত্র বা সরল পত্র কাকে বলে

index 5
একক পত্র বা সরল পত্র কাকে বলে

অখন্ডিত বা আংশিক খন্ডিত ফলক যুক্ত পাতাকে একক পত্র বা সরল পত্র বলে । উদাহরণ — আম , জবা , বট ইত্যাদির পাতা । একক পত্রকে দু -ভাগে ভাগ করা যায় , যথা — পক্ষল একক পত্র ( Simple pinnate leaf ) ও করতলাকার একক পত্র ( Simple palmate leaf ) ।

পক্ষল একক পত্র

একক পত্রের ফলকে যখন একটিমাত্র মধ্যশিরা থাকে তখন তাকে পক্ষল একক পত্র বলে । খন্ডনের গভীরতা অনুসারে এই পাতাকে তিন ভাগে ভাগ করা যায় । যথা – i. পক্ষল খন্ডিত ( Pinnatfid )  ii. পক্ষল উপখন্ডিত ( Pinnatipartite ) iii. পক্ষল অতিখন্ডিত ( Pannatisect )।

পক্ষল খন্ডিত : 

ফলকের খন্ডনের গভীরতার দূরত্ব ফলকের কিনারা থেকে মধ্যশিরা পর্যন্ত দূরত্বের অর্ধেক কম হয় । উদাহরণ— চন্দ্রমল্লিকা ( Chrysanthemum coronarium ) ।

পক্ষল উপখন্ডিত : 

ফলকের খন্ডনের গভীরতার দূরত্ব ফলকের কিনারা থেকে মধ্যশিরা পর্যন্ত দূরত্বের অর্ধেক হয় । উদাহরণ — শিয়ালকাঁটা ( Argemone mexicana ) ।

পক্ষল অতিখন্ডিত : 

ফলকের খন্ডনের গভীরতার দূরত্ব ফলকের কিনারা থেকে মধ্যশিরা পর্যন্ত দূরত্বের অর্ধেকের বেশি বা প্রায় মধ্যশিরা পর্যন্ত হয় । উদাহরণ — গাঁদা ( Tagetes patula ) ।  

করতলাকার একক পত্র

একক পত্রফলকে যখন একাধিক মধ্যশিরা থাকে তখন তাকে করতলাকার একক পত্র বলে । খন্ডনের গভীরতা অনুসারে এই পাতাকেও তিন ভাগে ভাগ করা যায় । যথা — i. করতলাকার খন্ডিত ( Palmatifid ) ii. করতলাকার উপখন্ডিত ( Palmatipartite ) iii. করতলাকার অতিখন্ডিত ( Palmatisect ) ।

করতলাকার খন্ডিত : 

ফলকের খন্ডনের গভীরতা ফলকের কিনারা থেকে বৃন্তের দূরত্বের অর্ধেক অপেক্ষা কম হয় । উদাহরণ — ঢ‍্যাঁড়শ ( Hibiscus escutentus ) । 

করতলাকার উপখন্ডিত : 

ফলকের খন্ডনের গভীরতা ফলকের কিনারা থেকে বৃন্তের দূরত্বের অর্ধেক পর্যন্ত হয় । উদাহরণ — রেড়ি ( Ricinus communis ) । 

করতলাকার অতিখন্ডিত : 

ফলকের খন্ডনের গভীরতা ফলকের কিনারা থেকে বৃন্তের দূরত্বের অর্ধেকের অধিক বা প্রায় বৃন্ত পর্যন্ত হয় । উদাহরণ — রেললতা ( Ipomoea pulchella ) ।

error: Content is protected !!