অরণ্য সংরক্ষণের উপায়

অরণ্য সংরক্ষণের উপায়

প্রাকৃতিক পরিবেশকে রক্ষা করতে গেলে অরণ্য সংরক্ষণ বা বন সংরক্ষণ অবশ্যই দরকার । বিভিন্ন উপায়ে অরণ্য সংরক্ষণ অরণ্য করা যায় । অরণ্য সংরক্ষণের উপায় বা অরণ্য সংরক্ষণের পদ্ধতি গুলি হলো一

বনসৃজন 

নতুন করে বনভূমি সৃষ্টি করলে অরণ্য সংরক্ষণ করা যায় । এজন্য ফাকা জমি , পতিত জমি ও অলাভজনক কৃষিজমিতে নতুন নতুন গাছ লাগানাে প্রয়ােজন । 

নির্দিষ্ট স্থানে পশুচারণ 

কেবলমাত্র তৃণভূমিতে পশুচারণের ব্যবস্থা করলে বনের চারাগাছকে গবাদিপশু খেতে পারবে । বনভূমি রক্ষা পাবে । 

পরিণত বৃক্ষচ্ছেদন ও চারাগাছ প্রতিস্থাপন 

বনভূমি থেকে পরিণত গাছগুলিকে এমনভাবে কাটতে হবে যাতে ছােটো গাছগুলি মারা না যায় বা কোনাে ক্ষতি না হয় । কাটা গাছের জায়গায় নতুন চারাগাছ রােপণ করে বনভূমি সংরক্ষণ করা যায় । 

উদ্ভিদের রক্ষণাবেক্ষণ 

পােকামাকড়ের আক্রমণ থেকে গাছকে ওষুধ প্রয়ােগ করে রক্ষা করা ও রােগগ্রস্ত উদ্ভিদকে চিহ্নিত করে তার জন্য উপযুক্ত ব্যবস্থা নেওয়া উচিত ।

ঝুম চাষ বন্ধ 

ঝুম চাষের জন্য বনভূমি পরিষ্কার করা হয় । আইন করে তা বন্ধ করা উচিত । 

কাঠের বিকল্প দ্রব্যের ব্যবহার বৃদ্ধি 

লােহা , স্টিল , অ্যালুমিনিয়াম , প্লাস্টিক ইত্যাদির তৈরি আসবাবপত্র ব্যবহার করলে কাঠের চাহিদা কমে । ফলে বনভূমি ধ্বংস হ্রাস পায় । 

কাঠ চুরি প্রতিরােধ 

বনভূমি থেকে প্রচুর পরিমাণে কাঠ চুরি হয় । রক্ষী নিয়ােগ করে কিংবা বনভূমির আয়ের কিছু অংশ দিয়ে সরকার যদি স্থানীয় অধিবাসীদের রক্ষণাবেক্ষণের দায়িত্ব দেয় তাহলে অরণ্যের গাছ রক্ষা পাবে ।

Leave a Comment

error: Content is protected !!